নোয়াখালী জেলা গোয়েন্দা ও থানা পুলিশের যৌথ অভিযানে বিপুল পরিমাণ স্বর্ণ অলংকার সহ ২ জন গ্রেফতার

0
38

নুরুন্নবী নবীন,নোয়াখালী জেলা প্রতিনিধি ঃ
নোয়াখালী জেলা গোয়েন্দা পুলিশ ও সুধারাম মডেল থানা যৌথ অভিযানে বিপুল পরিমাণ স্বর্ণ অলংকার ও চোরাই মালামালসহ আন্তঃজিলা ২ চোরাই দলের সদস্যকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

নোয়াখালীর পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে আয়োজিত এক সাংবাদিক সম্মেলনে পুলিশ সুপার শহিদুল ইসলাম, পিপিএম বলেন, চোরাই দলের সদস্যরা দীর্ঘদিন দেশের বিভিন্ন নগর মহানগরে চুরি করে আসছিল।

তিনি বলেন, গত ৫ এপ্রিল সুধারাম মডেল থানাধীন নোয়াখালী পৌরসভার ২নং ওয়ার্ড মাষ্টারপাড়া এলাকার,গোল্ডেন প্যালেসের ২য় তলার ফাতেমা বেগমের বাড়ীর দরজার তালা ভেঙ্গে ঘরে প্রবেশ করে। ঘরে থাকা আলমারি ও ওয়াড্রফ এর তালা ভেঙ্গে ১৫ ভরি স্বর্ণালংকার ও ১ এক লক্ষ টাকা চুরি করে নিয়ে যায়। ঘটনার পরপরই জেলা গোয়েন্দা শাখা ও সুধারাম মডেল থানা পুলিশ মাঠে নামে।

গত ৬ই আগস্ট জেলা গোয়েন্দা পুলিশ ও সুধারাম মডেল থানার পুলিশ সদস্যরা ঢাকা মহানগরের উত্তরা, মহাখালী, সদরঘাট, গুলশান, বাড্ডা, ডেমরাসহ বিভিন্ন এলাকায় সাঁড়াশি অভিযান পরিচালনা করে। এসময় তথ্য- প্রযুক্তির মাধ্যমে ঘটনার সময়ে সিসি ক্যামেরায় ধারণকৃত ভিডিও ফুটেজ পর্যালোচনায় করে আসামী ১। আশিকুল ইসলাম(৩০), পিতা-মৃত আসলাম মোল্লা, মাতা-নিলুফা বেগম, -আশুলির চর পূর্বকান্দি, থানা-মুন্সিগঞ্জ সদর, জেলা-মুন্সিগঞ্জ, ২।মোঃ মামুন মোল্লা(২৮), পিতা-মৃত-আরমান মোল্লা, -নিরালা বাজার, থানা-সোনাডাঙ্গা, জেলা-খুলনাদ্বয়কে বাড্ডা ও ডেমরা এলাকা হতে গ্রেফতার করা হয়।

আসামীদের দেওয়া তথ্য মতে আসামী আশিকুল ইসলামের ডেমরা কোনাপাড়াস্থ ভাড়া বাসা হতে ৪টি ছোট বড় স্বর্ণের আংটি, ১ জোড়া কানের দুল, ১টি স্বর্ণের চেইন ও ১টি লকেট,১ জোড়া রুপার চুড়ি, ২ জোড়া নুপুর, ১টি ব্রেসলাইট, ১টি ল্যাপটপ, ২টি মোবাইল সেট, নগদ ৫ হাজার ৯০০ টাকাসহ চুরির কাজে ব্যবহৃত যন্ত্রপাতি উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ সুপার শহিদুল ইসলাম বলেন, গ্রেফতারের পর জিজ্ঞাসাবাদে চোরাই দলের সদস্যরা চুরির কথা স্বীকার করেছে। তারা জানিয়েছে তারা দেশের বিভিন্ন জেলায় দীর্ঘদিন যাবৎ চুরি করে আসছিল।

গ্রেফতারকৃত আসামিদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে বলে, পুলিশ সুপার শহিদুল ইসলাম সাংবাদিকদের জানান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here