অভিনেত্রীর সঙ্গে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে একাধিক বার শারীরিক সম্পর্ক, কাস্টিং ডিরেক্টর আটক

0
6
 এ যেনো মামার বাড়ির আবদার বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে দিনের পর দিন কয় এক মাস বছর শারীরিক সম্পর্ক করতেন কাস্টিং ডিরেক্টর। একপর্যায়ে গর্ভপাত করানোর অভিযোগে ওই কাস্টিং ডিরেক্টরকে আটক করে মুম্বাই পুলিশ। সুত্র: (খবর জি নিউজের।) রিপোর্টে প্রকাশ, বছর ২৮-এর অভিনেত্রীকে বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে দিনের পর দিন ধরে তাঁর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক করেন মুম্বাইয়ের এক কাস্টিং ডিরেক্টর। গত কয়েক মাস ধরে ওই অভিনেত্রীর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক স্থাপানের অভিযোগ ওঠে ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে। এমনকী, বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে ওই তরুণীর সঙ্গে তাঁর ভারসোভার ফ্ল্যাটে থাকতেও শুরু করেন কাস্টিং ডিরেক্টর। এ পর্যন্ত সব ঠিকই ছিল। গত অক্টোবর মাস থেকে শুরু হয় অশান্তি। অভিযোগকারিনীর দাবি, গত অক্টোবর মাসে ওই কাস্টিং ডিরেক্টরকে বিয়ের কথা বলেন তরুণী। প্রেমিকার বিয়ের প্রস্তাব পেয়ে বেঁকে বসেন তিনি। এমনকী, বিয়ের প্রস্তাব পাওয়ার পর প্রকাশ্যে এক পার্টির মধ্যে অভিনেত্রীকে অপমান করেন ওই কাস্টিং ডিরেক্টর। এরপরই ওই অভিনেত্রী অন্তঃসত্ত্বা বলে জানান। যা শোনার পরও ওই ব্যক্তির কোনও হেলদোল ছিল না। এমনকী, ওই তরুণীর সঙ্গে তিনি হাসপাতালে যেতেও যেমন অস্বীকার করেন, তেমনি বিয়ের প্রস্তাবও নস্যাৎ করে দেন। সম্পর্ক নিয়ে প্রেমিকের সঙ্গে শীতলতা এবং মন কষাকষির জেরে শেষ পর্যন্ত গর্ভপাত হয়ে যায় অভিনেত্রীর। এরপরই তিনি পুলিশের দ্বারস্থ হন। এমনকী, গর্ভপাতের পর তিনি আত্মহত্যা করবেন বলেও স্থির করেন বলে দাবি করেন অভিযোগকারিনী। এরপর ওই অভিনেত্রীর দাদা এবং জামাইবাবু দুজনে মিলে কাস্টিং ডিরেক্টরের সঙ্গে কথা বলেন এবং বিয়ের কথা বলেন। তা সত্ত্বেও ওই ব্যক্তি অভিনেত্রীকে বিয়ে করবেন না বলে স্পষ্ট জানিয়ে দেন। ঘটনা জানাজানি হওয়ার পর অভিযুক্ত কাস্টিং ডিরেক্টরকে আটক করেছে মুম্বাই পুলিশ। পাশাপাশি কাস্টিং ডিরেক্টরের বিরুদ্ধে অভিনেত্রীর ধর্ষণের অভিযোগও খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানা যায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here