ময়মনসিংহের গফরগাঁও বিয়ের দুই সপ্তাহ না যেতেই কীটনাশক পানে আত্মহত্যা।

0
7

তাপস কর,ময়মনসিংহ প্রতিনিধি।

ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ে বিয়ে করার দুই সপ্তাহের মাথায় ফেরদৌস (২২) নামে এক তরুণ কীটনাশক পানে আত্মহত্যা করেছেন। ঘটনাটি ঘটে গতকাল বুধবার রাতে উপজেলার রসুলপুর চকপাড়া গ্রামে। এঘটনায় গফরগাঁও থানায় দায়েরকৃত অপমৃত্যু মামলার ভিত্তিতে পুলিশ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেছেন। থানা ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার রসুলপুর চকপাড়া গ্রামের শহীদ মিয়ার ছেলে ফেরদৌস কিছুটা হাবাগোবা ধরনের। প্রায়ই সে অস্বাভাবিক আচরণ করত। প্রায় দুই সপ্তাহ পূর্বে পরিবারের লোকজন ফেরদৌসকে বিয়ে করায়। গতকাল বুধবার সন্ধ্যায় ফেরদৌস স্থানীয় রসুলপুর চৌরাস্তা বাজারে যায়। সেখানে আড্ডা দিয়ে রাত ৮টার দিকে চলে আসে। আসার পর বাড়ির পাশের জঙ্গলে কীটনাশক পান করে বসতঘরের পেছনে পড়ে কাতরাতে থাকে। পরিবারের লোকজন খোঁজ পেয়ে রাত ১১টার দিকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার মৃত ঘোষণা করেন। এঘটনায় নিহতের ভাই মিস্টার রাতেই গফরগাঁও থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা করেন। পুলিশ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করে। গফরগাঁও থানার ওসি অনুকূল সরকার বলেন, এঘটনায় দায়েরকৃত অপমৃত্যু মামলার ভিত্তিতে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য প্রেরণ করা হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত করে ময়নাতদন্তের রিপোর্টের ভিত্তিতে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here