যশোর সন্ত্রাসীর স্বীকারোক্তিতে মাটিতে পুতে রাখা অস্ত্র উদ্ধারআটক ২

0
6

মোঃ আবু বাক্কার সিদ্দিক বেনাপোল প্রতিনিধি:

যশোর শহরের রেলবাজার ও রেলগেট এলাকার কুখ্যাত চাঁদাবাজ ও সন্ত্রাসী মেহেদী ও শানুকে আটক করেছে করেছে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী।

এ সময় তাদের কাছ থেকে দুইটি অস্ত্র, গুলি ও চাকু উদ্ধার করা হয়। মঙ্গলবার আটক দুইজনকে আদালতে সোপর্দ করা হলে বিচারক তাদেরকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন। পুলিশের একটি সূত্র জানায়, গত সোমবার বিকেল সোয়া ৩টার দিকে চাঁচড়া পুলিশ ফাঁড়ির এসআই মফিজুর রহমান শহরের রেলস্টেশন এলাকার রূপসা হোটেলের সামনে অভিযান চালিয়ে কুখ্যাত চাঁদাবাজ ও সন্ত্রাসী অনিক হাসান ওরফে মেহেদীকে আটক করেন।

সে শংকরপুর আশ্রম রোডের মহিলা মাদরাসার পেছনের ইজিবাইক চালক আলী মিয়ার ছেলে। পরে তার স্বীকারোক্তিতে চাঁচড়া (শংকরপুর) বধ্যভূমি স্মৃতিস্তম্ভের পাশের পুকুর পাড়ে মাটির নিচে পুঁতে রাখা একটি ওয়ান শ্যুটারগান ও একটি চাকু উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় তার বিরুদ্ধে কোতয়ালি থানায় অস্ত্র আইনে একটি মামলা হয়েছে। সূত্র জানায়, আটক অনিক হাসান ওরফে মেহেদীর বিরুদ্ধে থানায় হত্যা, অস্ত্র আইন, মাদকদ্রব্য, বিস্ফোরকদ্রব্য ও চাঁদাবাজিসহ বেশ কয়েকটি মামলা রয়েছে। র‌্যাব সূত্র জানা গেছে, একুশে ফেব্রুয়ারি রাত সোয়া ৩টার দিকে র‌্যাব-৬ স্পেশাল কোম্পানির ডিএডি (পুলিশ পরিদর্শক) মো. রমজান আলী গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শহরের রেলগেট পশ্চিমপাড়ার জনৈক বিল্লাল খানের বাড়ির সামনের মাঠে অভিযান চালান। এ সময় তিনি সেখান থেকে শানু আটক ও একটি ওয়ান শ্যুটারগান ও এক রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়। আটক শানু রেলগেট পশ্চিমপাড়ার লিয়াকত আলীর (ঢাকাইলে লিয়াকত) ছেলে। সোমবার তাকে যশোর কোতয়ালি থানায় সোপর্দ এবং তার বিরুদ্ধে অস্ত্র আইনে মামলা করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here