রিপবলিকানদের বিরোধিতা ক্যাপিটলে হামলার তদন্তে

0
12

হাকিকুল ইসলাম খোকন ,যুক্তরাষ্ট্র সিনিয়র প্রতিনিধিঃ

চলতি বছরের শুরুতে যুক্তরাষ্ট্রের গণতন্ত্রের প্রতীক ক্যাপিটল ভবনে ট্রাম্প সমর্থকদের হামলার ঘটনায় দ্বিদলীয় তদন্ত কমিশন গঠনের একটি বিল আটকে দিয়েছে রিপবলিকানরা।

তাদের বিরোধিতার কারণে ক্যাপিটলে হামলার ঘটনায় তদন্ত অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে। গত সপ্তাহে মার্কিন প্রতিনিধি পরিষদে তদন্ত কমিশন গঠনে একটি বিল পাস হয়েছিল। সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের দল রিপাবলিকান পার্টির সিনেটরদের দাবি, চলতি বছরের ৬ জানুয়ারি ক্যাপিটল ভবনে হামলার ঘটনা ইতোমধ্যেই কংগ্রেশনাল প্যানেলের মাধ্যমে তদন্ত করা হয়েছে। তবে ডেমোক্র্যাটদের দাবি, ২০০১ সালে যুক্তরাষ্ট্রে নাইন-ইলেভেনের হামলার পর গঠিত হওয়া কমিশনের মতো এবারও একই ধরনের একটি তদন্ত কমিশন গঠন করা হলে তা যেকোনো ধরনের হামলার হাত থেকে ভবিষ্যতে ক্যাপিটল ভবনকে রক্ষা করবে।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি জানিয়েছে, চলতি বছরের ৬ জানুয়ারি ওয়াশিংটন ডিসির ক্যাপিটল ভবনে ট্রাম্প সমর্থকদের হামলার তদন্তে একটি তদন্ত কমিশন গঠনের বিল সিনেটে আটকে দিয়েছে রিপাবলিকানরা। কমিশন গঠনের জন্য মার্কিন কংগ্রেসের উচ্চকক্ষ সিনেটে ৬০টি ভোটের দরকার ছিল। কিন্তু কমিশন গঠনের পক্ষে ভোট দিয়েছেন ৫৪ জন সিনেটর। এদের মধ্যে রিপাবলিকান সিনেটর ৬ জন। এ ঘটনায় রিপবলিকান পার্টির সমালোচনা করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন।

তিনি বলছেন, ‘আমেরিকায় গৃহযুদ্ধ পরবর্তী সময় ক্যাপিটলের ওপর হওয়া সবচেয়ে বড় হামলার ঘটনা তদন্তের জন্য প্রয়োজনীয় কমিশন গঠনের বিরুদ্ধে কেউ ভোট দিতে পারে, এটা আমি চিন্তাই করতে পারি না।’ গত ৬ জানুয়ারি যুক্তরাষ্ট্রের পার্লামেন্ট ভবন ক্যাপিটলে জো বাইডেনকে যুক্তরাষ্ট্রের নতুন প্রেসিডেন্ট হিসেবে স্বীকৃতি দিতে যৌথ অধিবেশন বসেছিল কংগ্রেসের নিম্নকক্ষ হাউস অব রিপ্রেজেন্টেটিভস এবং উচ্চকক্ষ সিনেট সদস্যদের। অধিবেশন চলাকালে সেখানে হামলা করেন ডোনাল্ড ট্রাম্পের কয়েক হাজার উন্মত্ত সমর্থক। ওই দাঙ্গায় পুলিশ সদস্যসহ নিহত হয়েছিলেন ৫ জন। ক্ষমতা থেকে বিদায় নেওয়ার মাত্র দুই সপ্তাহ আগে হওয়া এই হামলার ঘটনায় ট্রাম্পের উস্কানি ছিল বলে অভিযোগ রয়েছে। তবে ট্রাম্প এই অভিযোগ বরাবরই অস্বীকার করে আসছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here