মেয়েটির নাম: রোকেয়া, আনুমানিক বয়স: ১৪ বছর।

0
20

পিতা: মৃতঃ আহলাদ শেখ, মাতাঃ পিয়ারা বেগম। গ্রাম: মধুপুর, পো: কার্ত্তিকপুর, থানা: নড়িয়া, জেলা: শরীয়তপুর। রিক্সা চালক বাবা ক্যান্সার আক্রান্ত হয়ে মারা যায়, অভাবের সংসারে দুরারোগ্য রোগে আক্রান্ত রোকেয়া কে ছোট বেলায়ই ফেলে রেখে মা নিখোঁজ হয়ে যায়। সেই রোকেয়া মানুষের বাড়ি বাড়ি যেয়ে চেয়ে খাবার খেয়ে বড় হয়। আজ রোকেয়ার মানুষের বাড়ি বাড়ি যাওয়ার সুযোগ হয় না। না খেয়ে অনাহারে দিন কাটে। দুরারোগ্য রোগে আক্রান্ত রোকেয়া আজ হারিয়ে ফেলেছে তার শিশু ও কৈশোর বেলার অদম্য শক্তিকে, পারেনা নিজের খাবার টুকুও যোগান দিতে,,অসুস্থ এতটুকু বাচ্চা মেয়ে কিভাবেই বা দিবে তার খাবারের যোগান?? তাই মানবতার দৃষ্টি থেকে বলছি,,আপনাদের মধ্যে অনেকেই আছেন যারা চাইলে বাচ্চাটি চিকিৎসা ও বাসস্থানের ব্যবস্থা করে দিতে পারেন,,আমি শরীয়তপুর জেলার প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি দয়া করে আপনারা বাচ্চাটার বিষয়টি একটু দেখুন।কেননা সেও একজন মানুষ,, আর বাঁচার অধিকার তো সবারি আছে,,আপনারা সকলেই মানবতার দৃষ্টিকোণ থেকে একটু এগিয়ে আসুন।

বিঃদ্রঃ আপনার করা একটি শেয়ার খবরটি পৌঁছে দিতে পারে কোন মানবিক মানুষ নিকট💞

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here