কোটি টাকার মামলা নায়িকা দিঘির বিরুদ্ধে

0
63

 বিনোদন বিডি প্রতিবেদক:

‘তুমি আছো তুমি নেই’ সিনেমাটিকে কেন্দ্র করে অভিনেত্রী প্রার্থনা ফারদিন দীঘির ওপর অভিমান করেছেন পরিচালক দেলোয়ার জাহান ঝন্টু।

অভিমানে দীঘির বিরুদ্ধে মামলার হুমকিও দিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু সেটি আর হুমকিতে সীমাবদ্ধ নেই। কথামতো কাজ করেছেন ঝন্টু। বুধবার (১০ মার্চ) দুপুরে দীঘির বিরুদ্ধে আদালতে মানহানি মামলা করেছেন এ প্রবীণ নির্মাতা। সময়নিউজকে মোবাইল ফোনে বিষয়টি জানিয়েছেন তিনি। নির্মাতা ঝন্টু বলেন, ‘দীঘি, তার বাবা এবং মামা তিনজনের বিরুদ্ধে মামলা করেছি।’ কত টাকার মানহানি মামলা করেছেন? এমন প্রশ্নের উত্তরে এ নির্মাতা বলেন, ‘আমার সম্মান ১০ কোটি টাকার। পৃথিবীতে সিনেমার গল্প সবচেয়ে বেশি আমি লিখেছি। এশিয়া মহাদেশের মধ্যে সবচেয়ে বেশি চলচ্চিত্র আমি বানিয়েছি। আমার তো ১০ কোটিও কম। আমি এক কোটি টাকার মানহানি মামলা করেছি।

আমার সম্মান তার (দীঘি) থেকে অনেক বেশি।’ ঝন্টু আরো বলেন, ‘নায়িকাই বলেছে ছবিটি চলবে না। মানুষ যাবে কেন? এত বড় সাহস! মুক্তির আগে চলবে না বললে তো সে (দীঘি) পরিচালক এবং প্রযোজকদের জন্য হুমকি। এটা কালচার হয়ে যাবে। অন্য নায়ক-নায়িকারাও বলবে।’ এর আগে গত মঙ্গলবার (৯ মার্চ) নির্মাতা ঝন্টুকে ‘সরি’ বলেছিলেন দীঘি। তার ভাষায়, ‘ঝন্টু আংকেল আমার ওপর কেন এত রাগ করেছেন, সেটা আমি জানি না। আমি এমন কোনো স্টেটমেন্ট বা মন্তব্য করিনি যে, উনি আমার নামে মামলা করতে চাইবেন। উনি আমার গুরুজন।

আমার কাছে অনেক সম্মানের একজন মানুষ। আমি যদি কোনোভাবে, কোনো কথায় উনাকে দুঃখ দিয়ে থাকি তাহলে আমি তাকে ‘সরি’ বলছি। শিশুশিল্পী হিসেবে ঢাকাই সিনেমায় অভিষেক হয়েছিল দীঘির। কাজী হায়াৎ পরিচালিত ‘কাবুলীওয়ালা’ সিনেমায় অভিনয় করেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছিলেন তিনি। শিশুশিল্পী হিসেবে মোট ৩০টি সিনেমায় অভিনয় করেছেন দীঘি। নায়িকা হিসেবে ফিরেছেন তিনি। অভিনয় করেছেন ‘টুঙ্গিপাড়ার মিয়া ভাই’ ও ‘তুমি আছো তুমি নেই’ সিনেমাতে। এ ছাড়া ‘বঙ্গবন্ধু’ বায়োপিক এবং ‘শেষ চিঠি’ ওয়েব ফিল্মে দেখা যাবে তাকে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here